মেনু নির্বাচন করুন

পশুর হাট - মোবাইল অ্যাপ, জেলা প্রশাসন সিরাজগঞ্জের একটি উদ্ভাবনী উদ্যোগ

"জনবহুল স্থান এড়িয়ে চলি,

পশুর হাট অ্যাপসে পশু ক্রয়-বিক্রয় করি"
 

প্লে-স্টোর থেকে অ্যাপ ডাউনলোড এর লিংকঃ https://play.google.com/store/apps/details?id=com.app.poshurhaat

আসন্ন ঈদ-উল আযহাকে সামনে রেখে সামাজিক দূরত্ব ও স্বাস্থ্য সুরক্ষার কথা বিবেচনা করে সিরাজগঞ্জ জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ঘরে বসে অনলাইনে "পশুর হাট" নামে পশু বেচা-কেনার মোবাইল অ্যাপের উদ্বোধন করা হয়েছে।

অ্যাপটিতে ৫ ধরণের ব্যবহারকারী রয়েছেঃ

  • সুপার এডমিন
  • জেলা প্রশাসন এডমিন
  • লাইভস্টক এডমিন
  • বিক্রেতা
  • ক্রেতা

অ্যাপটি ব্যবহারের সুবিধা সমূহঃ

১. অ্যাপটি বাংলাদেশের যেকোন জায়গা থেকে ব্যবহার করা যাবে। সেক্ষেত্রে অবশ্যই সুপার এডমিন কর্তৃক কোনো নির্দিষ্ট জেলার নূন্যতম একজন জেলা প্রশাসন এডমিন রোলের ব্যবহারকারী অ্যাপটিতে তৈরি করে নিতে হবে।

২. জেলা প্রশাসন এডমিন, প্রয়োজন অনুযায়ী লাইভস্টক এডমিন রোল এর ব্যবহারকারী অ্যাপটিতে সংযুক্ত করে দিতে পারবেন, যারা পরবর্তীতে প্রান্তিক পর্যায়ের খামারীদের বিক্রেতা হিসেবে অ্যাপটিতে সংযুক্ত করবেন।

৩. ক্রেতা ও বিক্রেতাসহ অ্যাপের সকল ব্যবহারকারী নিবন্ধনের সময় প্রদত্ত মোবাইল নাম্বারটি ইউজার আইডি হিসেবে ব্যবহার করে অ্যাপটিতে লগইন করতে পারবেন।

৪. অ্যাপটি অ্যান্ড্রয়েড চালিত যেকোনো ডিভাইস থেকে APK ইন্সটল করে অথবা www.poshurhaat.com - এই ওয়েবসাইটটি ব্রাউজ করে যেকোনো ডিভাইস থেকে ব্যবহার করতে পারবেন।

  • . "পশুর হাট" অ্যাপটি ব্যবহারের ক্ষেত্রে ক্রেতা এবং বিক্রেতাকে কোনো অর্থ ব্যয় করতে হবে না। যে কোন প্রাকার মধ্যসত্বভোগীদের দৌরাত্ম্য এড়িয়ে সরাসরি ক্রেতাকে বিক্রেতার সাথে সংযোগ করে দেয়াই আমাদের এই অ্যাপের মূল উদ্দেশ্য।
  • . "পশুর হাট" অ্যাপটি এমনভাবে তৈরি করা হয়েছে যে, এটি সারা দেশের ৬৪ টি জেলাতে একযোগে পরিচালনা করা সম্ভব। বর্তমানে রাজশাহী বিভাগের, মান্যবর বিভাগীয় কমিশনার স্যারের সদয় নির্দেশে রাজশাহীর ৮টি জেলাতে অ্যাপটি চলমান রয়েছে। এছাড়াও রাজশাহীর বাইরে ঢাকা বিভাগের কিশোরগঞ্জ এবং বরিশাল বিভাগের ভোলা জেলা এই অ্যাপটিতে যুক্ত আছে।
  • . "পশুর হাট" অ্যাপটি শুধুমাত্র কোরবানির ঈদে ব্যবহারের জন্যই নয়, এই অ্যাপটি এমনভাবে তৈরি করা হয়েছে যেন এটি সারা বছরই আমাদের দেশের প্রান্তিক পর্যায়ের খামারিরা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তাদের তত্ত্বাবধানে থেকে ব্যবহার করতে পারেন।

৮। মূলত প্রান্তিক পর্যায়ের খামারীরা বিক্রেতা হিসেবে এই অ্যাপটিতে যুক্ত হবেন। তবে কোনো বিক্রেতা নিজে অ্যাকাউন্ট খুললে লাইভস্টক এডমিন অ্যাপ্রুভ করে দিলে তার অ্যাকাউন্টটি সচল হবে। বিক্রেতা তার অ্যাকাউন্টে লগইন করার পর প্রাপ্ত ড্যাশবোর্ড থেকে পশুর বর্ণনা পোস্ট করবেন। পরবর্তীতে কোনো পশু বিক্রি হলে সেটিও ড্যাশবোর্ড থেকে চিহ্নিত করে দিবেন।

৯। অ্যাপটির মূল ব্যবহারকারী হবেন ক্রেতাগণ। এক্ষেত্রে ক্রেতাকে অ্যাপ ব্যবহারের ক্ষেত্রে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে এবং তার ইংরেজিতে প্রদত্ত মোবাইল নাম্বারটি অ্যাপে ইউজার আইডি হিসেবে ব্যবহার হবে। ইউজার আইডি ও পাসওয়ার্ড দিয়ে লগইন করার পর বিভিন্ন খামারীর পশু বিক্রি করার পোস্ট নিউজ ফিড আকারে ক্রেতা দেখতে পাবেন। কোনো একটি পোস্টের লিংক এ ক্লিক করলে সেখান থেকে ঐ পশুর ছবি ভিডিওসহ বিস্তারিত তথ্য দেখে ক্রেতা বিক্রেতার সাথে সরাসরি যোগাযোগের সুযোগ পাবেন।

 

পশুর হাট প্রকল্পের বিস্তারিতঃ

অ্যাপের নামঃ পশুর হাট

ভার্সনঃ ১.০

উদ্ভাবনী উদ্যোগঃ জেলা প্রশাসন সিরাজগঞ্জের একটি উদ্ভাবনী উদ্যোগ

পরিকল্পনায়ঃ

  • ড. ফারুক আহাম্মদ, জেলা প্রশাসক, সিরাজগঞ্জ
  • এ,বি,এম, রওশন কবীর, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক, শিক্ষা ও আইসিটি, সিরাজগঞ্জ

প্রজেক্ট ম্যানেজারঃ

কম্পিউটার প্রকৌশলী মো. মাসুদুর রহমান, সহকারী কমিশনার, জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, সিরাজগঞ্জ

ডিজাইনারঃ আইতুল আব্দুল্লাহ

ডেভেলপারঃ মোঃ হাসানুর রহমান হাসান

প্রজেক্ট টিমঃ এস এফ টেকনোলজিস লিমিটেড, সিরাজগঞ্জ

প্লে-স্টোর এর লিংকঃ https://play.google.com/store/apps/details?id=com.app.poshurhaat

ওয়েবসাইটঃ www.poshurhaat.com


Share with :

Facebook Twitter